কফ বের করতে আদা-লেবু ও মধুর রস

পার্শ্বপ্রতিক্রিয়াহীন ভাবে ঘরোয়া পদ্ধতিতে বুকের কফ বের করার সহজ সমাধান আছে আপনার হাতের কাছেই।শীত বা গরমে ঠাণ্ডা লাগলে অনেকসময় বুকে কফ জমে যায়।কখনও কখনও এটা থেকে সংক্রমণও তৈরি হয়। কফ জমলে বুক ভারী হয়ে আসে, অস্বস্তি হয়, গলাও ব্যথা করে। কখনও কখনও এটা এতটাই তীব্র হয় যে শ্বাস নিতে ও খেতেও কষ্ট হয়।

এ ধরনের সমস্যা হলে ঘরোয়া উপায়েই এর সমাধান সম্ভব। কফ জমে বুক ভারী হয়ে এলে এক গ্লাস গরম পানির সঙ্গে মধু ও লেবুর রস যোগ করে দিনে দুই থেকে তিনবার পান করুন। মধু গলা ও বুক পরিষ্কার করতে সাহায্য করবে। আর লেবুতে থাকা ভিটামিন শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়।

গরম দুধের সঙ্গে মধু, হলুদ আর গোলমরিচ মিশিয়ে খেলেও ঠাণ্ডার হাত থেকে রক্ষা পাওয়া যায়। হলুদ ব্যাকটেরিয়া ধ্বংস করে আর গোল মরিচ হজমে সহায়তা করে এবং ঠাণ্ডা, কাশি সারায়। উপকার পেতে দিনে দুইবার এটি খেতে পারেন।
এই সময় গরম পানি পান করলে গলায় আরাম বোধ করবেন।ধীরে ধীরে বুকে জমাট বাঁধাও কমে আসবে।

গরম পানির সঙ্গে আদার রস আর সামান্য লবণ মিশিয়ে দিনে ৩ থেকে ৪ বার কুলিকুচি করলে গলা ও বুক পরিষ্কার করতে সহায়তা করবে।

আদা কিংবা তুলসি চা-ও গলা ব্যথা কিংবা বুকের কফ পরিষ্কার করতে সাহায্য করে। চায়ের সঙ্গে চিনির পরিবর্তে মধু ব্যবহার করলে বেশি উপকার পাওয়া যাবে।

গরম পানির সঙ্গে হলুদের গুড়া মিশিয়ে কুলিকুচি করলেও বুকে জমাট বাঁধা কফ কমে যায়।
এক গ্লাস গরম পানিতে রসুনের রস, লেবুর রস, মধু মিশিয়ে দিনে তিন থেকে চারবার খেলে বুকে জমে থাকা কফ থেকে অনেকটা আরামবোধ করবেন।

 

প্রশ্ন-উত্তরে অংশগ্রহণ করে অর্থ উপার্জন জন্য এখানে নিবন্ধন করুন, বিস্তারিত জন্য এখানে প্রবেশ করুন